কি পাবো আমি।


ধীরে ধীরে হারিয়ে গেলো বইয়ের আদিম পৃষ্ঠাগুলোর স্পর্শ এই নিষ্ঠুর জীবন থেকে। বর্তমান পৃথিবীতে কেন যেন কাগজ, কলম আর বই খুবই বিরক্তিকর কিছু।


বইয়ের দোকানের বইগুলো তো এখন ধুলোর আড়ালে। আজকাল বইয়ের দোকানে তেমন একটা যাই না। কারণ, বই পড়াটা যেন অভিশপ্ত হয়ে গেছে এই নিষ্ঠুর পৃথিবীতে। প্রযুক্তির চাকায় পিষ্ট পৃথিবীতে বই পড়ার এই মহা ধৈর্য তো অবলুপ্ত হয়েছে ২০০০ সালের শুরুতেই। কিন্তু, পৃথিবী তখন প্রযুক্তির হাতিয়ারে মহামুগ্ধ।

কি পাবো আমি এই আধুনিক প্রযুক্তির যুগে সেই আদিম বইগুলোতে? আমি এখন বইয়ের চেয়ে বেশী কিছু মোবাইল ফোনে পাই।


প্রশ্ন হল, “আমি বইয়ের চেয়ে মোবাইল ফোনে বেশী কিছু কি পাই আসলে?” আসলে কি খুঁজি আমি এই মহা অতৃপ্ত জীবনে? আমি যে ভুলে গেছি বই পড়ার অনুভূতিগুলো, এগুলো যে এই মোবাইল ফোনে অনুপস্থিত। বইগুলো এখন খুব অপ্রয়োজনীয় এই অপ্রয়োজনীয় পৃথিবীতে।


মাঝে মাঝে যাই বইয়ের দোকানগুলোতে, কেও কেও যায় ওখানে, কিন্তু, হঠাৎ বেজে ওঠে ওদের হাতে ধরা মোবাইল ফোনগুলো, এখন ওরা সবাই মোবাইল ফোনের ইন্টারনেটে মহামগ্ন, এখন ওরা আর বই খুঁজবে না।

এভাবেই তো হারিয়ে গেলো বইয়ের পৃথিবী।


Leave a Reply